অবশেষে ২০০ টপকে জিতল হায়দরাবাদ

খেলা বিনোদন

২৮৭, ২৭৭, ২৬৬—এবারের মৌসুমে রেকর্ড ভেঙেচুরে একাকার করে দিয়েছে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। তবে প্রদীপের নিচের আঁধারের মতো করে ছিল আরেকটি পরিসংখ্যান—এর আগে ৩ বার ২০০ বা এর বেশি রান তাড়া করতে নেমে প্রতিবারই ব্যর্থ হয়েছিল দলটি। আজ ঘরের মাঠে সে ‘আক্ষেপ’ও ঘোচাল তারা। পাঞ্জাব কিংসের দেওয়া ২১৫ রানের লক্ষ্য ৪ উইকেট ও ৫ বল বাকি থাকতে পেরিয়ে গেছে প্যাট কামিন্সের দল। নিজেদের ইতিহাসেই মাত্র দ্বিতীয়বার ২০০ বা এর বেশি রানের লক্ষ্য তাড়া করে জিতল হায়দরাবাদ।

পাঞ্জাব বিদায় নিয়েছে আগেই, হায়দরাবাদেরও প্লে–অফ আগেই নিশ্চিত হয়েছে। আগের ম্যাচটি বৃষ্টিতে ভেসে যাওয়ায় শীর্ষ দুইয়ে থেকে লিগ পর্ব শেষ করার সমীকরণটাও হায়দরাবাদের হাতে ছিল না। তবে সে আশা টিকিয়ে রাখতে জয় দরকার ছিল, হায়দরাবাদ সে কাজটি করে রাখল। এখন পরের ম্যাচে কলকাতা নাইট রাইডার্সের কাছে রাজস্থান রয়্যালসের হারের আশা করতে হবে তাদের। অবশ্য সে ম্যাচ পরিত্যক্ত হলেও নেট রান রেটের সৌজন্যে এগিয়ে থাকবে হায়দরাবাদই।

রান তাড়ায় হায়দরাবাদের শুরুটা হয়েছিল বাজে, অর্শদীপ সিংয়ের করা ইনিংসের প্রথম বলেই বোল্ড ট্রাভিস হেড। এরপরও পাওয়ারপ্লে শেষে দলটির স্কোর ছিল এমন—৮৪/২! মৌসুমে প্রথম ৬ ওভারে এটি তাদের তৃতীয় সর্বোচ্চ স্কোর। সেটি এসেছে অভিষেক শর্মা ও রাহুল ত্রিপাঠির তৃতীয় উইকেটে ৩০ বলে ৭২ রানের জুটির সৌজন্যে

নিজেদের ইতিহাসে দ্বিতীয়বার ২০০ বা এর বেশি রান তাড়া করে জিতল হায়দরাবাদ

পাওয়ারপ্লে শেষের আগেই রাহুল ফিরলেও নীতীশ কুমার রেড্ডিকে নিয়ে অভিষেক যোগ করেন ৩১ বলে ৫৭ রান। এরপর নীতীশের সঙ্গে হাইনরিখ ক্লাসেনের ২৩ বলে ৪৭ রানের আরেকটি জুটি মাঝের ওভারগুলোতেও রানের গতি ধরে রাখা নিশ্চিত করে। জয় থেকে ৭ রান দূরে ক্লাসেন থামেন ২৬ বলে ৪২ রানের ইনিংস খেলে, তবে হায়দরাবাদের জয় পেতে সমস্যা হয়নি কোনো এরপর।

টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নামা পাঞ্জাবের শুরুটা ঠিক হায়দরাবাদের মতো না হলেও বেশ ভালো ছিল। অথর্ব তাইড়ে ও প্রভসিমরান সিং এ মৌসুমে উদ্বোধনী জুটিতে পাঞ্জাবের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৯৭ রান তোলার পথে প্রথম ৬ ওভারে তোলেন ৬১ রান। প্রভসিমরান ১৫তম ওভারে আউট হওয়ার আগে খেলেন ৪৫ বলে ৭১ রান।

রাইলি রুশোর ২৪ বলে ৪৯ এবং এ ম্যাচে পাঞ্জাবের অধিনায়ক জিতেশ শর্মার ১৫ বলে ৩২ রানের ক্যামিওতে ২০০ পেরোয় পাঞ্জাব। এ মৌসুমে দ্বিতীয়বার ২০০ পেরোল দলটি। তবে শেষ পর্যন্ত যথেষ্ট হলো না সেটিও।

সংক্ষিপ্ত স্কোর
পাঞ্জাব কিংস: ২০ ওভারে ২১৪/৫ (প্রভসিমরান ৭১, রুশো ৪৯, অথর্ব ৪৬, জিতেশ ৩২*; নটরাজন ২/৩৩, কামিন্স ১/৩৬, বিয়াসকান্ত ১/৩৭)
সানরাইজার্স হায়দরাবাদ: ১৯.১ ওভারে ২১৫/৬ (অভিষেক ৬৬, ক্লাসেন ৪২, নীতীশ ৩৭, রাহুল ৩৩; অর্শদীপ ২/৩৭, হার্শাল ২/৪৯, শশান্ত ১/৫, হারপ্রীত ১/৩৬)
ফলাফল: হায়দরাবাদ ৪ উইকেটে জয়ী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *